বৈঠক ডেকেছেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি

ডেস্কঃ  সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট ও আপিল বিভাগের বিচারপতিদেরকে নিয়ে ফুল কোর্ট সভা আহবান করা হয়েছে। মঙ্গলবার (৩ অক্টোবর) দুপুর সোয়া দুইটায় সুপ্রিম কোর্টের জাজেস লাউঞ্জে এ সভা অনুষ্ঠিত হবে বলে সুপ্রিম কোর্টের ওয়েব সাইট সূত্রে জানা গেছে।

ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি আব্দুল ওয়াহহাব মিঞার নির্দেশক্রমে এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছেন হাইকোর্ট বিভাগের ডেপুটি রেজিষ্ট্রার মো. আজিজুল হক।

অসুস্থতার কারণে প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার এক মাসের ছুটি নেওয়ার পর আপিল বিভাগের সিনিয়র বিচারপতি আবদুল ওয়াহাব মিঞাকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করে আইনমন্ত্রণালয়। তাই বিচারপতি ওয়াহাবকে এই দায়িত্ব দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ।

বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহাব মিঞার জন্ম ১৯৫১ সালের ১১ নভেম্বর। তিনি ১৯৭৪ সালে আইনজীবী হিসেবে তালিকাভুক্ত হন। আপিল বিভাগের সিনিয়র আইনজীবী হন ১৯৯৯ সালে। ২০১১ সালে তিনি আপিল বিভাগের বিচারপতি হন। সর্বশেষ গত ১০ থেকে ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহা দেশের বাইরে থাকায় ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন মো. আবদুল ওয়াহাব মিঞা। দায়িত্ব গ্রহণ করেই দুপুরে সব বিচারপতিকে নিয়ে মিটিং ডেকেছেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি।

এরআগে মঙ্গলবার (৩ অক্টোবর) সকাল ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি আবদুল ওয়াহহাব মিঞা আইনজীবীদের উদ্দেশ্যে বলেন, আজ আমরা আদালতের এজলাসে বসছি না। আপিল বিভাগ এই পর্যন্ত মুলতবি। আইনজীবী ও বিচারপতিদের একটি পুনর্মিলনী অনুষ্ঠান আছে। এজন্য আজকে আমরা মামলা পরিচালনায় বসতে পারবো না।

মঙ্গলবার (৩ অক্টোবর) সকাল ৯টা ১০ মিনিটের দিকে পাঁচ সদস্যের আপিল বেঞ্চ বসেন। আবদুল ওয়াহাব মিঞার নেতৃত্বাধীন পাঁচ সদস্যের বেঞ্চ একঘন্টার জন্য বসে মোট ৮টি মামলা পরিচালনা করেন।

এদিকে প্রধান বিচারপতির ছুটিতে যাওয়ার বিষয়ে পরবর্তী করনীয় কী হবে সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি ও সম্পাদকের নেতৃত্বাধীন একাংশ নিজেদের মধ্যে বিশেষ আলোচনা করছে। প্রধান বিচারপতির অনুপস্থিতি নিয়ে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতি ভবনে মিছিল করেছে বিএনপি পন্থি আইনজীবীরা। তাদের অভিযোগ প্রধান বিচারপতিকে অবরুদ্ধ করে রেখেছে সরকার।

Share This Post

Post Comment